অপরাধজাতীয়

আড়াইহাজারে রাতের আঁধারে দরজা ভেঙে কিশোরীকে ধর্ষণ

সাপ্তাহিক আড়াইহাজার: নারায়ণগঞ্জ জেলার আড়াইহাজারে গভীর রাতে ঘর থেকে ১৭ বছরের এক কিশোরীকে তুলে নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে মামলা হয়েছে। মামলায় অজ্ঞাতনামা ছয়জনকে আসামি করে শুক্রবার (১৭ মে) নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে আড়াইহাজার থানায় এ মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মামলার অভিযোগ অনুসারে, গত বুধবার (১৫ মে) গভীর রাতে আড়াইহাজার পৌরসভার চামুরকান্দি এলাকায় অজ্ঞাত ৫-৬ জন যুবক ঘরের দরজা ভেঙে ভেতরে ঢুকে ওই কিশোরীর হাত-পা বেঁধে তাকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, কিশোরীর পরিবারটি মুন্সিগঞ্জ এলাকার বাসিন্দা ছিল। মেঘনায় বাড়ি ভেঙে যাওয়ায় চার মাসে আগে আড়াইহাজারের চামুরকান্দি এলাকায় জায়গা কিনে বাড়ি বানিয়ে বসবাস করছিল তারা। ঘটনার দিন অনুমানিক রাত ২টা ৩০ মিনিটে কিশোরী ও তার মা ঘুমে থাকাকালে অজ্ঞাতনামা ৫-৬ জন দরজা ভেঙে ভেতরে ঢুকে দেশীয় অস্ত্রের মুখে ভয়ভীতি দেখিয়ে ওই কিশোরীকে তাদের বাড়ির ডান পাশে ভিকটিমের অপর এক আত্মীয়ের খালি ঘরে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে ধর্ষণ করা হয়। পরে অভিযুক্তরা কিশোরীর মাকে বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতি দেখায় এবং হত্যার হুমকি দিয়ে চলে যায়।

আড়াইহাজার পৌরসভার স্থানীয় কাউন্সিলর মোমেনুল হক শুভ জানান, মেয়েটির বাড়ি নদীর পাশে। এই এলাকায় জুয়াড়ি ও বখাটেদের আড্ডা থাকে। তারা এই ঘটনা ঘটাতে পারে। এটি একটি ঘটনাটি মর্মান্তিক। আমরা এর সঠিক বিচার চাই।

মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে আড়াইহাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আহসান উল্লাহ জানান, পূর্ব কোনো শক্রতা থেকে এই ঘটনা ঘটতে পারে। অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারে পুলিশ এরই মধ্যে অভিযানে নেমেছে। ভিকটিমকে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য নারায়ণগঞ্জ পাঠানো হয়েছে। আশা করি দ্রুত সময়ের মধ্যে আসামিরা গ্রেপ্তার হবে।

আরও পড়ুন >   আড়াইহাজার সহ ১৫৯ উপজেলাকে গৃহহীন-ভূমিহীনমুক্ত ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর
আরও দেখুন

সম্পৃক্ত

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button